মাইন্ড এইডের চিকিৎসক ২ দিনের রিমান্ডে

রাজধানীর আদাবরে মাইন্ড এইড হাসপাতালে সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) মো. আনিসুল করিমকে হত্যার অভিযোগে দায়ের করা মামলায় হাসপাতালটির চিকিৎসক ডা. আব্দুল্লাহ আল মামুনকে দুই দিনের রিমান্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

মঙ্গলবার ঢাকা মহানগর হাকিম শহিদুল ইসলামের আদালত শুনানি শেষে এ আদেশ দেন। ডা. আব্দুল্লাহ আল মামুন জাতীয় মানসিক স্বাস্থ্য ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালের রেজিস্ট্রার।

এর আগে আসামিকে আদালতে হাজির করা হয়। এ সময় মামলার তদন্ত কর্মকর্তা আদাবর থানার পুলিশ পরিদর্শ ক মো. ফারুক মোল্লা তার দশ দিনের রিমান্ডের আবেদন করেন। অপরদিকে আসামিপক্ষের আইনজীবী সাইফুল ইসলাম সোহেল রিমান্ড বাতিল চেয়ে জামিনের প্রার্থনা করেন। এরপর আদালত জামিন আবেদন খারিজ করে দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে ১০ নভেম্বর আদাবর থানায় আনিসুল করিম শিপনের বাবা বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. ফাইজুদ্দিন আহম্মেদ বাদী হয়ে ১৫ জনকে আসামি করে হত্যা মামলা দায়ের করেন। এর মধ্যে দুই আসামি পলাতক রয়েছে। তারা হলেন, সাখাওয়াত হোসেন ও সাজ্জাদ আমিন।

উল্লেখ্য, গত ৯ নভেম্বর আদাবরের মাইন্ড এইড হাসপাতালে ভর্তি হন এএসপি আনিসুল করিম। ভর্তির কিছুক্ষন পর ওয়াশরুমে যেতে চাইলে তাকে হাসপাতালের অ্যাগ্রেসিভ ম্যানেজমেন্ট রুমে তাকে মারধরের ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে বিভিন্ন মাধ্যমে।

দীর্ঘক্ষন অচেতন থাকা অবস্থায় তাকে জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউটে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার জানান, হাসপাতালে আনার আগেই মৃত্যু হয়েছে শিপনের।

এ ঘটনায় আনিসুল করিম শিপনের বাবা বাদী হয়ে ১৫ জনকে আসামি করে রাজধানীর আদাবর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

এই মামলায় মঙ্গলবার সকালে আব্দুল্লাহ আল মামুনকে গ্রেফতার করে আদাবর থানা-পুলিশ।