যে কারণে ঠাণ্ডা-জ্বর রাতে বাড়ে

103

সাধারণভাবে বলা যায় রাতে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও ঘুমায়।

ঘুমের রুটিনের মতো রাতেও শরীরের রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা বিশ্রাম নেয়। আর এই কারণে দিনের চাইতে রাতের বেলা জ্বর ভোগায় বেশি।

চিকিৎসা-বিজ্ঞানের তথ্যানুসারে স্বাস্থ্য-বিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়, জ্বর অবস্থায় দিনে শরীর ভালো থাকলে সাধারণত ২৪ থেকে ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে চিকিৎসকের প্রয়োজন হয় না।

দিনে রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা আমাদের সুরক্ষিত রাখে। তবে রাতে কম কার্যকর থাকার কারণে সংক্রমণ দ্রুত বাড়ে। ফলে ভাইরাস ধ্বংস করতে শরীরের তাপমাত্রা বৃদ্ধি পায়।

চিকিৎসা-বিজ্ঞানের ভাষায় একে ‘খনিকের জ্বর’ বলে।

এটা শুধু বিশ্রামের বিষয় নয়। পাশাপাশি সকালে ঘুম থেকে ওঠার সঙ্গে সঙ্গে শরীর সকল বিরূপ পরিস্থিতি ও অসুস্থতার সঙ্গে মোকাবিলার জন্য দেহের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা প্রস্তুত হয়। মস্তিষ্ক-ও অন্যান্য কাজে সক্রিয় থেকে রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতাকে সাহায্য করে।

হালকা জ্বরের ক্ষেত্রেও দিনের বেলায় রোগী ভালো থাকেন। তবে রাত হলে তাপমাত্রা বৃদ্ধি পায়। কারণ প্রতিরোদ ব্যবস্থা কম কার্যকর থাকায় শরীরকে একা ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়তে হয়। ফলে তখন মনে হয় যে জ্বর বাড়ছে অথবা ওষুধে কাজ করছে না।