ভারতে টিকটক নিষিদ্ধের দাবি

13

ফেসবুক, হোয়াটসঅ্যাপের মতোই এই সময়ে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে টিকটক অ্যাপ। বিভিন্ন গান, বিখ্যাত সিনেমার সংলাপসহ নানান রকম মজাদার অডিও’র সঙ্গে ঠোঁট মিলিয়ে ছোট ভিডিও তৈরি করে আপলোড করা যায়।

অ্যাপটি বিশাল জনগোষ্ঠীর দেশ ভারতে বেশ জনপ্রিয়। ২০১৮ সালে দেশটিতে সব থেকে বেশি ডাউনলোড করা অ্যাপগুলির মধ্যে প্রথম দিকেই রয়েছে টিকটক। এবার অ্যাপটির বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলেছেন অনেকে।

দেশটির সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, মঙ্গলবার তামিলনাড়ুর বিধানসভায় দাঁড়িয়ে তথ্য ও প্রযুক্তি মন্ত্রী এম মন্দিকন্দন জানিয়েছেন, টিকটক বন্ধ করার জন্য কেন্দ্রের কাছে সাহায্য চাইবে তামিলনাড়ু সরকার।

টিকটক অ্যাপের বিরুদ্ধে প্রথম অভিযোগ আনেন তামিলনাড়ুর এআইডিএমকে নেতা ও বিধায়ক থামিমাম আনসারি। তাঁর অভিযোগ, এই অ্যাপটি ভারতীয় সংস্কৃতিকে ধ্বংস করছে। বহু অভিভাবক ও সমাজকর্মী তাঁর কাছে এসে অভিযোগ জানিয়েছেন অ্যাপটির বিরুদ্ধে।

ব্লু হোয়েল গেমের মতোই, টিকটক বন্ধ করে দেয়ার দাবি জানিয়েছেন তামিলনাড়ুর তথ্য ও প্রযুক্তি মন্ত্রী এম মন্দিকন্দনও। যদিও অনেকেই রাজনীতিকদের এমন মন্তব্যকে নিন্দা করেছেন। কারোর যদি ভিডিও দেখতে সমস্যা হয় তাহলে তা না দেখাই ভাল বলে জানিয়েছেন কংগ্রেস মুখপাত্র খুশবু।