শিকাগোতে সড়ক দুর্ঘটনায় বাংলাদেশি নিহত

145

যুক্তরাষ্ট্রের শিকাগো সিটির একটি নার্সিং সেন্টারে চিকিৎসারত আছেন মা। পাঁচ বছর ধরে নিয়মিত তাকে দেখতে যেতেন মেয়ে বিনা চৌধুরী (৪২)। বুধবারই মা-মেয়ের শেষ দেখা হয়েছিল। কারণ নার্সিং হোম থেকে ফিরে আর বাসায় পৌঁছাতে পারেননি। গাড়ির ধাক্কায় অনেক রক্তক্ষরণ হয়েছিল।

শিকাগো সিটির ফারেল এভিনিউর উত্তরে পোটার রোডে হেঁটে হোফম্যান এভিনিউর ১৫০০ ব্লক অতিক্রমকালে একটি গাড়ি বিনাকে চাপা দেয়।পার্ক রিজ পুলিশের ডেপুটি চীফ ডুয়ানে মিলামা জানিয়েছেন, বীনা চৌধুরী যে স্থান দিয়ে হাঁটছিলেন তা পথচারিদের জন্যে ছিল না। মারাত্মকভাবে আহত বিনাকে পুলিশ উদ্ধার করে নিকটস্থ এডভোকেট লুথারেন জেনারেল হাসপাতাল নেয়া হয়। কিন্তু বাঁচানো যায়নি।

শিকাগোতে বাংলাদেশের অনরারি কন্সাল জেনারেল মুনির চৌধুরী জানান, ঢাকার কেরানিগঞ্জের সন্তান বিনা চৌধুরী গত ৫ বছর ধরে নার্সিং হোমে তার মাকে দেখতে যাচ্ছিলেন। প্রতিদিনই ঘরের রান্না করা খাবার নিয়ে যেতেন। ঝড়-বৃষ্টি কিংবা তুষারপাতও তাকে আটকাতে পারেনি।

মা-বাবার অস্টম সন্তানের সপ্তম ছিলেন বিনা। স্বামীর সাথে ছাড়াছাড়ি হবার পর গত ৭ বছর যাবত তিনি তার বড় বোনের সাথে অবস্থান করছিলেন। তার একমাত্র পুত্র মারা গেছে এক বছর বয়সেই। মাকে খুবই ভালোবাসতেন বিনা। তার মৃত্যুর প্রকৃত কারণ উদঘাটনের জন্যে তদন্ত অব্যাহত রয়েছে। চাপা দেয়া গাড়ির ড্রাইভারকেও পাওয়া গেছে। ৩১ বছর বয়সী ড্রাইভারও শিকাগো সিটিরই বাসিন্দা। ড্রাইভার তদন্তে সহায়তা করছেন। এখন পর্যন্ত ড্রাইভারকে অভিযুক্ত করা হয়নি।

বিনা চৌধুরীর জানাজা অনুষ্ঠিত হবে শুক্রবার বাদ জুম্মা দেশ প্লেইন্স এলাকায় ইসলামিক কম্যুনিটি সেন্টারে। সেখানেই তাকে দাফন করা হবে।