২০১৯ বিশ্বকাপের পর অবসর নেবেন ইমরান তাহির

9

আন্তর্জাতিক একদিনের ম্যাচ থেকে অবসরের কথা জানিয়ে দিলেন দক্ষিণ আফ্রিকার তারকা স্পিনার ইমরান তাহির। সোমবার টুইট করে সে কথা জানিয়েছেন তাহির।

যদিও আপাতত তিনি টি২০ খেলা চালিয়ে যাবেন বলেও জানিয়েছেন। ক্রিকেট সাউথ আফ্রিকার তরফে জানানো হয়েছে, তাহির চান অবসর নিয়ে আগামী প্রজন্মের জন্য জায়গা ছেড়ে দিতে।

এই ক্রিকেট বিশ্বকাপ অনেক তারকা প্লেয়ারেরই শেষ ওডিআই হতে চলেছে। এর আগে বিশ্বকাপের পর অবসরের কথা আগেই ঘোষণা করে দিয়েছিলেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের ক্রিস গেল।

এ বার সেই একই পথে হেঁটে বিশ্বকাপের পর আন্তর্জাতিক একদিনের ম্যাচ থেকে অবসরের কথা জানিয়ে দিলেন দক্ষিণ আফ্রিকার তারকা স্পিনার ইমরান তাহির। সোমবার টুইট করে সে কথা জানিয়েছেন তাহির।

যদিও আপাতত তিনি টি২০ খেলা চালিয়ে যাবেন বলেও জানিয়েছেন। ক্রিকেট সাউথ আফ্রিকার তরফে জানানো হয়েছে, তাহির চান অবসর নিয়ে আগামী প্রজন্মের জন্য জায়গা ছেড়ে দিতে।

ক্রিকেট সাউথ আফ্রিকা টুইট করে জানিয়েছে, ‘‘২০১৯ ক্রিকেট বিশ্বকাপ ইমরান তাহিরের শেষ ওডিআই দেশের হয়ে। ৩৯ বছরের এই ক্রিকেটার টি২০ ক্রিকেট চালিয়ে যাবেন। কিন্তু তিনি চান একদিনের ক্রিকেটে আরও বেশি করে স্পিনার উঠে আসুক।”

ক্রিকেট সাউথ আফ্রিকার বিজ্ঞপ্তিতে তাহির বলেন, ‘‘আমি সব সময় বিশ্বকাপ খেলতে চেয়েছিলাম। ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে বোঝপড়ায় আমি সিদ্ধান্ত বিশ্বকাপই আমার শেষ ওডিআই হবে। সে কারণে সেই পর্যন্ত আমার চুক্তি রয়েছে। এর পর ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া আমাকে অনুমতি দেবে বিশ্বের যে কোনও জায়গায় বিভিন্ন লিগে ক্রিকেট খেলার। তবে দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে টি২০ খেলা চালিয়ে যেতে চাই।”

তাহির জানিয়েছেন, একদিনের ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়ার সিদ্ধান্তটা সহজ ছিল না। তিনি বলেন, ‘‘আমি সব সময় চাইতাম যতদিন সম্ভব খেলা চালিয়ে যেতে। কিন্তু জীবনে এমন সময় আসে যখন বড় সিদ্ধান্ত নিতে হয়।”

তাহির জানিয়েছেন, তিনি দেশের হয়ে ২০২০ আইসিসি বিশ্বকাপ পর্যন্ত খেলতে চান।

৩৯ বছরের এই স্পিনারের অভিষেক হয়েছিল ২০১১ সালে দিল্লিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে। এর পর দেশের হয়ে ৯৫টি ম্যাচ খেলেছে। নিয়েছেন ১৫৬টি উইকেট। গড় ২৪.৫৬। ইকনমি রেট ৪.৬৫। রয়েছে তিনবার পাঁচ উইকেট নেওয়ার কৃতিত্বও। ৩৭টি টি২০ ও টেস্টে তাহিরের ঝুলিতে এসেছে ৬২ ও ৫৭ উইকেট।