ভারতের পতাকা পোড়ানো ইস্যুতে দুঃখপ্রকাশ করল ব্রিটেন

8

ভারতের পতাকা পোড়ানো ইস্যুতে দুঃখপ্রকাশ করেছে ব্রিটেন। গত ২৬ জানুয়ারি সাধারণতন্ত্র দিবসে লন্ডনে ভারতীয় হাই কমিশনের বাইরে বিক্ষোভরত বেশ কিছু বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন পতাকা পোড়ায়।

এমনটাই খবর প্রকাশিত হয় বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে। আর এরপরেই নড়েচড়ে বসে ব্রিটেন। এই নিয়ে সোমবার ব্রিটেনের ফরেন অ্যান্ড কমনওয়েলথ অফিস (এফসিও) জানিয়েছে, যেভাবে ভারতের পতাকা পোড়ানো হয়েছে, তাতে আমরা দুঃখিত।

এফসিও-র মুখপাত্র আরও জানিয়েছেন, ‘আমরা ভারতকে সাধারণতন্ত্র দিবসে অভিনন্দন জানিয়েছি। ভারতের সঙ্গে সম্পর্ক আরও গভীর করতে আমরা আগ্রহী। ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে ব্রিটেন বেরিয়ে যাওয়ার প্রস্তুতি শুরু করেছে। এই অবস্থায় আন্তর্জাতিক বিশ্বে আমাদের সহযোগী দেশগুলির সঙ্গে নতুন করে সম্পর্ক গড়তে আমরা সক্রিয়।’

প্রসঙ্গত, প্রজাতন্ত্র দিবসের দিন ব্রিটেনে ইন্ডিয়া হাউসের বাইরে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে বেশ কয়েকটি শিখ এবং কাশ্মীরি বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠনের নেতারা। সেখানে ভারতের জাতীয় পতাকায় আগুন ধরিয়ে দেওয়ার পাশাপাশি ভারত বিরোধী স্লোগানও দিয়ে থাকে।

এমনকি স্লোগান উঠতে থাকে মোদী বিরোধীও। যদিও বিক্ষোভ সম্পর্কে আগে থেকেই সতর্ক ছিল লন্ডনের মেট্রোপলিটন পুলিশ। তবে ঘটনায় কাউকে গ্রেপ্তার করা হয়নি বলে পুলিশ জানিয়েছে।

তবে পুলিশের এহেন ভূমিকায় ক্ষুব্ধ ভারত। ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানানো হয়েছে ভারতের তরফে। একই সঙ্গে ব্যবস্থা নেওয়ার কথাও বলা হয়েছে।