আপাতত শাটডাউন উঠল আমেরিকায়

4

কিছুটা পিছু হঠলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তারই জেরে ৩৫ দিন পর শাটডাউন উঠল আমেরিকায়৷ মেক্সিকোর সীমানাজুড়ে প্রাচীর গড়ে তোলার জন্য কংগ্রেস অর্থ বরাদ্দ না করলেও, ট্রাম্প শুক্রবার তাঁর শাটডাউনের সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।

তিনি জানিয়েছেন, সোমবার, ২৮ জানুয়ারি থেকেই পুরোদমে সরকারি কাজকর্ম শুরু হবে । তবে সেটা আগামী তিন সপ্তাহের জন্য। তার মধ্যে কংগ্রেস ওই খাতে অর্থ বরাদ্দে সম্মতি না দিলে ফের শাটডাউনের পথেই ফের যাবেন বলে হুমকিও দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

ট্রাম্প জানিয়েছেন, ওই খাতে অর্থ বরাদ্দের জন্য প্রয়োজনে তিনি প্রেসিডেন্টের বিশেষ ক্ষমতাও প্রয়োগ করতে দ্বিধা করবনে না৷ তবে আপাতত তাঁর শাটডাউন সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের ফলে ৮ লক্ষ মার্কিন কর্মচারীর মাইনে পাওয়া ঘিরে যে অনিশ্চয়তা দেখা গিয়েছিল আপাতত তার অবসান হল।

সিনেট এবং হাউস অফ রিপ্রেজেন্টেটিভস, মার্কিন কংগ্রেসের দু’টি কক্ষই এই শাটডাউন প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছে।

এদিকে মেক্সিকো থেকে অনুপ্রবেশ ঠেকাতে প্রতিবেশি দেশের সীমান্তে শক্তিশালী প্রাচীর গড়ে তোলার জন্য কংগ্রেসের কাছে ৫৭০ কোটি ডলার চেয়েছিলেন ট্রাম্প। কিন্তু সেই ডাকে কংগ্রেস সাড়া দেয়নি শুধু নয় ডেমোক্র্যাট সদস্যরা রীতিমতো বিরোধিতা করেন।

তখন কংগ্রেসের উপর চাপ সৃষ্টি করতে শাটডাউনের পথে গিয়ে সরকারকে প্রায় নিষ্ক্রিয় করে দেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। এরফলে মার্কিন সরকারের প্রায় ৮ লক্ষ কর্মচারী গত ৫ সপ্তাহ ধরে বেতন পাচ্ছেন না।

যাদের বেতন আটকে গিয়েছে তাদের মধ্য যেমন রয়েছেন মার্কিন কোস্ট গার্ডের নাবিকরা তেমনই আবার হোয়াইট হাউসের নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা সিক্রেট সার্ভিস এজেন্টরাও৷ আবার এজন্য ভুক্তভোগী হলেন এয়ার ট্র্যাফিক নিয়ন্ত্রণ কর্মীদেরও।